৩০ হাজার টাকায় স্ত্রী বিক্রি

বরিশাল টুডে ॥ মাত্র ৩০ হাজার টাকার জন্য স্ত্রীকে পতিতালয়ে বিক্রির অভিযোগে আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার বরিশালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে ঘটনার শিকার গৃহবধু বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন। আদালতের বিচারক মো: মুজিবুর রহমান উজিরপুর থানার ওসিকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

মামলার অভিযোগে বলা হয় গত বছরের ৭ এপ্রিল উজিরপুর বাহেরঘাট এলাকার সামসুল হক শিকদারের মেয়ে মরিয়ম আক্তারের বিয়ে হয় ধামুরা এলাকার সামসুল হক বেপারির ছেলে সোহেলের সাথে। বিয়ের পর থেকেই টাকার জন্য বিভিন্ন সময় স্ত্রীকে শারিরিক ভাবে নির্যাতন করে আসছিল সোহেল। এক পর্যায় মেয়ের সুখের জন্য জামাইকে ব্যবসা করতে ৭০ হাজার টাকা যৌতুক দেন শ্বশুর। নেশা করে ওই টাকা উড়িয়ে দিয়ে পুনরায় স্ত্রীকে টাকা আনতে বাবার বাড়ি পাঠায় সোহেল।

তবে তাকে আর টাকা দিতে পারবেনা জানালে স্ত্রীর খোজ খবর নেয়া ব›দ্ধ করে দেয় সোহেল। এরপর গত ১৩ আগস্ট ঢাকায় গিয়ে চাকুরি করবে বলে স্ত্রীকে নিয়ে চাদপুরে যায়। সেখানে গিয়ে মাত্র ৩০ হাজার টাকার বিনিময়ে দালাল শাহ জালালের কাছে স্ত্রীকে পতিতালয়ে বিক্রি করে। পরে দালাল শাহ জালাল গৃহবধু মরিয়মের হাত ধরে টানাটানি করলে ডাক চিৎকার শুরু করে মরিয়ম।

ডাক চিৎকার শুনে পার্শ্ববর্তী লোকজন ছুটে আসলে দালাল শাহ জালাল পালিয়ে যায়। এক পর্যায় স্থানীয় থানার এসআই হেলাল সেখান থেকে মরিয়মকে উদ্ধার করে বলে মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়।