দলীয় মনোনায় নিয়ে শনিবার বরিশালে আসছেন জেবুন্নেছা হিরন

আসমা আক্তার ॥ ঠিক এক বছর পূর্বে যেমনি ভাবে আধুনিক বরিশালের রূপকার আলহাজ্ব শওকত হোসেন হিরনকে সংবর্ধনা দিয়ে বরণ করে নিয়েছিলো শনিবার সেভাবেই তার সহধমির্নী জেবুন্নেছা হিরনকে বরন করে নিবেন নেতা-কর্মীরা। ২০১৩ সালের ৯ মে সিটি কপোরেশন নির্বাচন আর ২০১৩ সালের ১ ডিসেম্বর জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনায়ন পেয়ে ঢাকা থেকে বরিশালে আসেন হিরন। ওই দিন বরিশাল আওয়ামী লীগের হাজার, হাজার নেতাকর্মি লঞ্চ ঘাট ও বিমান বন্দরে পূস্প বন্যায় ভাসিয়ে দলীয় কার্যলয়ে নিয়ে আসেন। অনুরুপ ১০ মে সেভাবেই ভোরে লঞ্চ ঘাটে আওয়ামী লীগের হাজার-হাজার নেতাকর্মীরা বরন করবেন জেবুন্নেছা হিরনকে। শোকের মধ্যেও হিরন পত্মির দলীয় মনোনায়ন পাওয়ায় নেতা-কর্মিদের এ আয়োজন।
বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগ সূত্রে জানাগেছে, বরিশাল-৫ (সদর) উপ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনায়ন পেয়ে জেবুন্নেছা হিরন ঢাকা থেকে আজ লঞ্চ (সুরভী-৭) যোগে বরিশালের আসবেন। তার আগমনকে কেন্দ্র করে বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের ৩০ ওয়ার্ডের নেতা-কর্মিরা প্রস্তুতি নিয়েছেন তাকে বরণ করে নেয়ার জন্য। ভোরে বরিশাল লঞ্চ টামিনালে নামার পরে নেতা-কর্মিরা তাকে সেখানে সংবর্ধনা দিবেন। পরে সেখান থেকে তাকে মোটর শোভা যাত্রাসহকারে বাসায় নিয়ে যাওয়া হবে। এদিকে আগামী কাল ১১ মে জেবুন্নেছা হিরন বরিশাল বিভাগীয় নির্বাচন কর্মিশন অফিসের রিটানিং কর্মকর্তার কাছে মনোনায়ন দাখিল করবেন। তবে কখন মনোনায়ন দাখিল করবেন সে ব্যাপারে কিছু জানাতে পারেনি মহানগর আওয়ামী লীগ। এ ব্যপারে মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. আফজালুল করিম জানান, জেবুন্নেছা হিরন বরিশালের আসার পরই স্বিধান্ত হবে নির্বাচন কর্মিশনে কখন মনোনায়ন দাখিল করা হবে।
প্রসঙ্গতঃ বৃহস্পতিবার ৮ মে সন্ধ্যায় গণভবনে আওয়ামী লীগের সংসদীয় বোর্ডের বৈঠক শেষে দলের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম দল থেকে জেবু্ন্েনসা আফরোজের মনোনয়ন চূড়ান্ত হয়েছে বলে ঘোষনা দেন। জেবুন্নেছা হিরনের নাম ঘোষনার সাথে সাথে প্রধানমন্ত্রি শেখ হাসিনাকে সুভেচ্ছা জানিয়ে আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরণ করে বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। এর আগে গত ৪ মে থেকে ৬ মে পর্যন্ত আওয়ামী লীগ দলীও সম্ভাব্য প্রার্থী হতে প্রায়ত আলহাজ্ব শওকত হোসেন হিরন পতœী জেবুন্নেছা হিরন’র পাশাপাশি মনোনায়ন সংগ্রহ করে ছিলেন মোর্শেদা বেগম লিপি, সাবেক সাংসদ পারভীন তালুকদার, শাম্মি আহম্মেদ, মাহাবুব উদ্দিন আহম্মেদ বীর বিক্রম, কর্নেল (অব:) জাহিদ ফারুক শামীম, মেজর জেনারেল (অব:) হাফিজ মলি¬ক, সাবেক সচিব সিরাজ উদ্দিন আহম্মেদ, কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দ্লু¬াহ, বিএম কলেজের সাবেক ভিপি মোঃ আনোয়ার হোসাইন, ড. ইউনুস আকন্দ ও মিল¬াহ হোসেন।
১০ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বরিশাল বিএনপি’র ঘাটি হিসেবে পরিচিত বরিশাল-৫ (সদর) আসনে বিনা প্রতিদ্বদিতায় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে ছিলেন আধুনিক বরিশালের রূপকার ও সাবেক মেয়র আলহাজ্ব শওকত হোসেন হিরন। তিনি নির্বাচিত হওয়ার পরপরই বরিশাল নগরীসহ সদর উপজেলার ১০ ইউনিয়নের উন্নয়নের পরিকল্পনা করে কাজ করতে শুরু করেন। কিন্তু দুঃভাগ্য জনকভাবে মাত্র ৩ মাসের মাথায় তিনি মারা যান। এতে করে বরিশাল আওয়ামী লীগসহ বরিশালবাসীর বড় ধরনের নেতৃত্ব শুন্যতা দেখা দেয়। বরিশালবাসী হিরন’র শোক কাটিয়ে উঠতে না উঠতেই সদর আসনে উপ-নির্বাচনের জন্য তফসিল ঘোষনা করে নির্বাচন কর্মিশন। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ দিন ১১ মে, মনোনয়নপত্র যাছাই-বাছাই ১৪মে, প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ২১ মে এবং ভোটগ্রহণ ১২জুন।