পলিটেকনিক শিক্ষার্থীদের যাত্রীবাহি বাসে হামলা

কাজী রনী ॥ বরিশাল পলিটেকনিক ইনষ্টিটিউটের বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা রবিবার দুপুরে একটি যাত্রীবাহি বাসে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করেছে। এতে বাসের স্টাফসহ কমপক্ষে ১৫ জন যাত্রী আহত হয়েছে। এদের মধ্যে গুরুতর আহত ৫জনকে শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা জানান, দু’দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে তারা রবিবার সমাপনী পরীক্ষা বর্জন করে বিক্ষোভ মিছিল করেছেন। তাদের এ দাবি পূরন না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন অব্যাহত থাকবে।

কোতয়ালী থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই গোলাম কবির জানান, শিক্ষার্থীরা দুপুর সাড়ে বারোটার দিকে মিছিল বের করে কাশিপুর যাচ্ছিলো। পথিমধ্যে বরিশাল-ঢাকা মহাসড়কের নগরীর সিএন্ডবি রোডের টিটিসি এলাকায় বসে মিছিল থেকে যাত্রীবাহি বিআরটিসি বাসের ওপর হামলা চালানো হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীদের ছত্রভঙ্গ করে দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন।

বিআরটিসি’র বরিশাল ডিপোর ট্রাফিক ইন্সপেক্টর জুলফিকার আলী জানান, খুলনা থেকে বরিশালগামী যাত্রীবাহি বিআরটিসি বাস (ঢাকা মেট্রো-ব ১১-২৭৭১) নগরীর সিএন্ডবি রোডের টিটিসি এলাকায় পৌঁছলে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা অর্তকিত ভাবে যাত্রীবাহি বাসে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করে। হামলায় বাসের স্টাফসহ কমপক্ষে ১৫ জন যাত্রী আহত হয়। গুরুতর আহত বাসের চালক মিজানুর রহমান, সুপারভাইজার পারভেজ হোসেনসহ ৩ জন যাত্রীকে শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হামলায় কমপক্ষে ৫ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।