বরিশালে বাস ও থ্রি হুইলারের সংঘর্ষে দুই মাদরাসা ছাত্র নিহত

ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কে সাকুরা পরিবহনের সাথে থ্রি হুইলার মাহিন্দ্রার সংঘর্ষে দুই মাদরাসা ছাত্র নিহত হয়েছে। শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে বরিশাল নগরীর কাশিপুর এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থলেই মোহাম্মদ হামজা নামে ১২ বছরের এক শিশু নিহত হয় এবং বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে মধ্যরাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় নোমান হাফিজ (১৪) নামে আরও এক শিশুর মৃত্যু হয়। এই ঘটনায় আহত হয়ে চিকিৎসাীন আছেন থ্রি হুইলার চালকসহ আরও চারজন। তবে ঘাতক বাসটিকে আটক করতে পারেনি পুলিশ। নিহত হামজা ও নোমান বরগুনা জেলার বামনা উপজেলার আমতলী গ্রামের বাসিন্দা ও বরিশাল নগরীর কাউনিয়া এলাকার আল কুরআন ফাউন্ডেশনের ছাত্র। আহতরা হলো ঐ মাদরাসার ছাত্র আইমান, বায়জীদ, রুবেল ও থ্রি হুইলার চালক সেলিম ভূইঞা। স্থানীয়রা জানায়, পিরোজপুরের ছারছিনা মাহফিল শেষে সেখান থেকে একটি থ্রি হুইলারে করে বরিশালের উদ্দেশ্যে আসে আল কোরআন ফাউন্ডেশনের ছাত্ররা। পথিমধ্যে কাশিপুর এলাকায় বরিশাল থেকে ঢাকাগামী সাকুরা পরিবহনের একটি বাসের সাথে থ্রি হুইলার মাহিন্দ্রাটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হয় শিশু হামজা। এছাড়া আহতদের উদ্ধার করে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় নোমান হাফিজের। নিহতদের মরদেহ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। বরিশাল এয়ারপোর্ট থানার সহকারি উপ পরিদর্শস মো. রাজিব জানান, ঘাতক বাস এবং বাসের ড্রাইভারকে আটক করা সম্ভব হয়নি। আমরা সিসি টিভি ফুটেজ দেখে আটকের চেষ্টা করছি।