বরিশাল বিসিকের ১১০টি অনুন্নত প্লট ভরাট কাজের উদ্বোধন

বরিশাল বিসিক শিল্প নগরীর ১১০টি অনুন্নত প্লট ভরাটের কাজ শুরু হয়েছে। শনিবার সকালে বরিশাল সিটি করপোরেশনের (বিসিসি) মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ এবং বরিশাল জেলা প্রশাসক জসীম উদ্দীন হায়দার ফিতা কেটে ভরাট কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। এ সময় বিসিকের উপ-মহাব্যবস্থাপক জালিস মাহমুদ এবং মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক গোলাম সরোয়ার রাজিব সহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন। ভরাট সম্পন্ন হয়ে গেলে বরিশাল বিসিকে আরও ১১০টি শিল্প করার জন্য জমি বরাদ্দ শুরু করবে কর্তৃপক্ষ। জালিস মাহমুদ বলেন, বরিশাল বিসিক শিল্প এলাকা আরও সমৃদ্ধ করার জন্য নিচু ৩৭ একর জমি ভরাটের উদ্যোগ নেয়া হয় ২০১৯ সালের শুরুর দিকে। এ লক্ষ্যে ৬ কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়ে একটি টেন্ডার আহ্বান করে কর্তৃপক্ষ। ইউনুস এন্ড ব্রাদার্স নামে একটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ভরাটের কাজ পেলেও প্রশাসনিক নানা জটিলতার কারনে নিচু জমি ভরাট বিলম্বিত হচ্ছিলো। সিটি করপোরেশনের ভেতর দিয়ে পাইপের মাধ্যমে পলিমাটি এনে নিচু জমি ভরাটে আপত্তি তুলেছিলো সিটি করপোরেশন। অবশেষে নবাগত জেলা প্রশাসক জসীম উদ্দীন হায়দারের মধ্যস্থতা ও সহযোগীতায় সিটি করপোরেশন নির্দিষ্ট ফি জমা দিয়ে পাইপের মাধ্যমে পলি মাটি এনে বিসিকের নিচু এলাকা ভরাটে সন্মতি দেয়। এর প্রেক্ষিতে সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ ও জেলা প্রশাসক জসীম উদ্দীন হায়দার উপস্থিত থেকে গতকাল বিসিকের অনুন্নত জমি ভরাট কাজের উদ্বোধন করেন। আজ রবিবার সিটি করপোরেশনে ফি জমা দিয়ে সরেজমিন বিসিকের ৩৭ একর জমি ভরাট কার্যক্রম শুরু হবে বলে জানান উপ-মহাব্যবস্থাপক জালিস মাহমুদ। এটা বরিশালবাসীর জন্য একটি আনন্দের এবং সু-খবর বলেও মন্তব্য করেন তিনি। ভরাট কার্যক্রম সম্পন্ন হয়ে গেলে বিসিকে আরও ১১০টি প্লট শিল্পদ্যোক্তাদের মাঝে বরাদ্দ দেয়া হবে বলে তিনি জানান।