মন্ত্রণালয়ের আদেশের ২০ দিন পর বিএম কলেজের উপাধ্যক্ষ পদে অধ্যাপক ড. এএস কাইয়ুম উদ্দিন আহম্মেদ এর যোগদান

বরিশাল সরকারি ব্রজমোহন (বিএম) কলেজের উপাধ্যক্ষ পদে যোগদান করেছেন অধ্যাপক ড. এএস কাইয়ুম উদ্দিন আহম্মেদ। মন্ত্রণালয়ের আদেশের ২০ দিন পর কলেজ অধ্যক্ষর কাছে যোগদানপত্র প্রদান করেন তিনি। বৃহস্পতিবার বিকাল ৪টায় ব্রজমোহন কলেজ অধ্যক্ষর কক্ষে শিক্ষক নেতা ও ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের উপস্থিতিতে এএস কাইয়ুম উদ্দিন যোগদান করেন। ব্রজমোহন কলেজের নবনিযুক্ত উপাধ্যক্ষ ড. এএস কাইয়ুম উদ্দিন আহম্মেদ জানান, যারা আমার বিরুদ্ধে আন্দোলন করেছে তাদেরকে নিয়েই বৃহস্পতিবার বিকাল ৪টায় উপাধ্যক্ষ পদে এই কলেজে আমি যোগদান করেছি। এসময় অন্যান্য শিক্ষক নেতারাও উপস্থিত ছিলেন। ব্রজমোহন কলেজের অধ্যক্ষ ড. গোলাম কিবরিয়া জানান, দেরি হলেও উপাধ্যক্ষ পদে বৃহস্পতিবার যোগদান করেছেন কাইয়ুম উদ্দিন। এর আগে একই কলেজের ইতিহাস বিভাগের প্রধান হিসেবে কর্মরত ছিলেন অধ্যাপক কাইয়ুম। যোগদানের সময় কলেজ শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আলামিন সরোয়ার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহিম সরদার, বরিশাল জেলা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি আতিকউল্লাহ মুনিম সহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে ২০ মে ব্রজমোহন কলেজের উপাধ্যক্ষ পদে পদায়ন পাওয়ায় ড. এএস কাইয়ুম উদ্দিন আহম্মেদের যোগদান ঠেকাতে টানা আন্দোলন করেছিলো ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। দুর্নীতিবাজ আখ্যা দিয়ে অধ্যাপক কাইয়ুম যাতে যোগদান করতে না পারে সেই উদ্দেশ্যে কলেজের প্রধান ফটকগুলোও বন্ধ করে দিয়েছিলো ছাত্রলীগ। সবশেষে আন্দোলনকারি নেতাকর্মীদের নিয়েই যোগদান করেছেন অধ্যাপক কাইয়ুম।